কর সংক্রান্ত সেবা সহজ করতে ফাস্ট ট্র্যাক সার্ভিস সেন্টার চালু

নিউজ ডেস্ক : একই ছাদের নিচে থেকে আয়কর রিটার্ন দাখিলসহ কর সংক্রান্ত বিভিন্ন সেবা করদাতাদের জন্য নিশ্চিত করতে রাজধানীর সেগুনবাগিচার তোপখানা রোডে অগ্রাধিকার সেবা কেন্দ্র (ফাস্ট ট্র্যাক সার্ভিস সেন্টার) চালু করা হয়েছে। এখানে করদাতারা রিটার্ন দাখিলসহ ইটিআইএন গ্রহণ, ই-ফাইলিং, আয়কর প্রত্যয়ন এবং আয়কর সংক্রান্ত দলিলাদির সার্টিফাইড কপি গ্রহণের সুযোগ পাচ্ছেন।
মঙ্গলবার ঢাকায় বাংলাদেশ সংবাদ সংস্থার (বাসস) প্রধান কার্যালয়ে পে-রোল ট্যাক্সের (অগ্রিম কর পরিশোধ) বিষয়ে উদ্বুদ্ধকরণ এবং মতবিনিময় সভায় কর অঞ্চল-২ এর কর কমিশনার কানন কুমার রায় এ তথ্য জানান।
তিনি বলেন, ফাস্ট ট্র্যাক সার্ভিস সেন্টারে সব ধরনের করসেবার পাশাপাশি আয়কর রিটার্ন ফরম পূরণসহ কর সংক্রান্ত সকল তথ্য পাওয়া যাবে।এখানে ই-টিআইএন রেজিস্ট্রেশন করার ব্যবস্থা রয়েছে। কীভাবে দাখিল ও ফরম পূরণ করতে হবে- এ বিষয়ে সহযোগিতা দিচ্ছে কর কর্মকর্তারা।
কর অঞ্চল-২ এবং কর অঞ্চল-৭ এর যৌথ উদ্যোগে এই ফাস্ট ট্র্যাক সার্ভিস সেন্টার চালু করা হয়েছে।
সরকারি বেতনভূক্ত বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তাদের পে-রোল ট্যাক্সের বিষয়ে উদ্বুদ্ধকরণ কর্মসূচির অংশ হিসেবে কর অঞ্চল-২ এর কর্মকর্তারা আজ কর কমিশনারের নেতৃত্বে রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থার সাংবাদিক ও কর্মকর্তাদের সাথে মতবিনিময় করেন।
সভায় বাসসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান সম্পাদক আবুল কালাম আজাদ, প্রধান বার্তা সম্পাদক মুহাম্মদ আনিসুর রহমান ও প্রধান প্রতিবেদক মো. আশেকুন্নবী চৌধুরী, কর অঞ্চল-২ এর অতিরিক্ত কর কমিশনার মো. মাহবুবুর রহমান ও তৌহিদা জিয়াসমিন চৌধুরী, যুগ্ম কর কমিশনার জিনাত আরা প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
আবুল কালাম আজাদ তার বক্তব্যে বলেন, যে কোন ধরনের হয়রানি এড়াতে কর ব্যবস্থা আরো সহজ হওয়া দরকার। পাশাপাশি কর কর্মকর্তাদের সাথে করদাতা বা দেশের মানুষের সম্পর্কের উন্নতি হলে জনসাধারণের মধ্যে থেকে করভীতি যেমন দূর হবে, তেমনি রাজস্ব আয়ও বাড়বে।
তিনি দেশে কর সচেতনতা বাড়াতে পে-রোল ট্যাক্স বিষয়ে চলমান উদ্বুদ্ধকরণ কর্মসূচির মতো কর সংক্রান্ত আরো অনেক কর্মসূচি চালু করতে কর কর্মকর্তাদের প্রতি আহবান জানান।
সভায় কর কমিশনার কানন কুমার রায় বলেন, কর পরিশোধ এবং আয়কর রিটার্ন দাখিল পদ্ধতি সহজ করতে অনলাইনে রিটার্ন দাখিল পদ্ধতি চালু করা হয়েছে। এতে রিটার্ন দাখিলের পাশাপাশি কর পরিশোধের তাৎক্ষণিক প্রাপ্তিও মিলবে।
তিনি বলেন, পে-রোল ট্যাক্সের বিষয়ে উদ্বুদ্ধকরণ এবং সচেতনতা তৈরিতে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তাদের সাথে কর কর্মকর্তারা মতবিনিময় করছে। এই কর্মসূচির অংশ হিসেবে আজ বাসসে মতবিনিময় করা হলো। আগামীকাল রাজউকের কর্মকর্তাদের সাথে এ ধরনের মতবিনিময় হবে।
উল্লেখ্য, পে-রোল ট্যাক্সের নতুন বিধান অনুযায়ী সরকারি বা স্বায়ত্ত্বসাশিত প্রতিষ্ঠানের পাশাপাশি এখন বেসরকারী প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তাদের জন্য পে-রোল ট্যাক্স প্রযোজ্য। চাকরিজীবীদের বেতন থেকে অগ্রিম কর কেটে রাখাটাই হলো পে-রোল ট্যাক্স।

Print Friendly, PDF & Email
basic-bank

Be the first to comment on "কর সংক্রান্ত সেবা সহজ করতে ফাস্ট ট্র্যাক সার্ভিস সেন্টার চালু"

Leave a comment

Your email address will not be published.


*