সংসারে ৩ টি বউ থাকা যে গ্রামের রীতি

নিউজ ডেস্ক : ভারতের মুম্বাই থেকে প্রায় ১৫০ কি.মি. দূরের গ্রামটির নাম দেঙ্গানমল। এই গ্রামের অধিকাংশ পুরুষই কমবেশি তিনজন স্ত্রীকে নিয়ে সংসার করেন। শুধু যে ভোগলালসা মেটানোর জন্য বহুবিবাহের পথ তারা বেছে নেন, তা নয়! একাধিক বিয়ে করার একমাত্র কারণ হচ্ছে পরিবারে পানি আনার লোকের সংখ্যা বাড়ানো!

জানা যায়, দেঙ্গানমল এমন একটি গ্রাম যেখানে প্রবল পানির কষ্ট। প্রত্যন্ত এই গ্রামে পানির একমাত্র উৎস কয়েকটি কুয়া। সেই সমস্ত কুয়া গ্রীষ্মে শুকিয়ে যায়। তখন দূরবর্তী কুয়া বা নদী থেকে পানি বয়ে আনা ছাড়া উপায় থাকে না। তাই গ্রীষ্মকালে পানি বয়ে আনার জন্যে তখন যাতায়াত মিলিয়ে প্রায় ১২ ঘণ্টা হাঁটতে হয়। আর নারীরাই এই পানি আনার কাজ করে থাকেন। প্রতিবার ১৫ লিটারের দু’টি কলসি বয়ে আনেন নারীরা। তাই ওই গ্রামের পুরুষরা বুঝতে পেরেছেন, বহুবিবাহই হলো পানি সমস্যা মেটানোর সহজতম রাস্তা। বাড়িতে বউয়ের সংখ্যা যত বাড়বে, তত বাড়বে পানি আনার হাত ও কলসির সংখ্যা। কাজেই অনেকেই দু’টি কিংবা তিনটি স্ত্রী নিয়ে ঘর করছেন দেঙ্গানমলে। ঘরের বউদের এই গুরুত্বের সুবাদে গ্রামে বিশেষ সম্মানও পান বিবাহিত নারীরা। বিয়ের জন্য কন্যাসন্তান সম্পন্না বিধবা কিংবা বিবাহবিচ্ছিন্নাদের কদরও বেশি। তাছাড়া তারা মনে করেন, ঘরে কন্যাসন্তান আসা মানে ঘরের কাজকর্ম সামলানোর মতো লোকের সংখ্যা বৃদ্ধি পাওয়া।

 

Print Friendly, PDF & Email
basic-bank

Be the first to comment on "সংসারে ৩ টি বউ থাকা যে গ্রামের রীতি"

Leave a comment

Your email address will not be published.


*