এবার রোনালদো-লেভানদোস্কির লড়াই

নিউজ ডেস্ক : ইউরোপের দুই স্বপ্ন পুরুষ তারা। প্রতিপক্ষের ডিফেন্সের সামনে আতঙ্ক। গোল করায় দারুণ নিপুণ। খেলেন ভিন্ন ভিন্ন দেশে, ভিন্ন ক্লাবে। ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো স্পেনের রিয়াল মাদ্রিদে। রবার্ট লেভানদোস্কি জার্মানির বায়ার্ন মিউনিখে। এবার দেশের হয়ে একে অন্যের মুখোমুখি দুই সুপারস্টার। ইউরো ২০১৬ এর কোয়ার্টার ফাইনালে বৃহস্পতিবার দেখা যাবে এই দুইয়ের মুখোমুখি লড়াই। পর্তুগাল ও পোল্যান্ড লড়বে সেমিফাইনালে উঠতে।

রোনালদো ৩১ বছর বয়সে। কখনো বড় শিরোপা জেতা হয়নি। হয়তো শেষ ইউরো তার। দেশের হয়ে ইউরোপ জয়ের স্বপ্ন বয়ে বেড়াচ্ছেন। আর একটি গোল করলেই ইউরোতে সর্বোচ্চ গোল করার মিশেল প্লাতিনির রেকর্ড স্পর্শ করবেন। এর মধ্যে চার ইউরোতে গোল করা প্রথম খেলোয়াড় হয়েছেন। ইউরোতে সর্বোচ্চ ম্যাচ খেলার রেকর্ডও তার। হাঙ্গেরির সাথে গ্রুপ পর্বে জোড়া গোল করে দেশকে বাঁচিয়েছিলেন। বিদায়ের মুখ থেকে নিয়ে এসেছিলেন শেষ ষোলোতে। কিন্তু রোনালদোর আগুন বলতে যা বোঝায় তার দেখা এখনো মেলেনি। ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে শেষ ষোলোর খেলাতেই সাফল্য পাননি রোনালদো।

২৭ বছরের লেভানদোস্কি বায়ার্নের গোল মেশিন। পোল্যান্ডেরও। এবারের ইউরোর বাছাই পর্বে সর্বোচ্চ ১৩ গোল করে পোল্যান্ডের ফ্রান্সের পথ সহজ করেছেন। এরপর ৩৪ বছর পর আবার পোলিশরা ইউরোর শেষ আটে। কিন্তু লেভা জ্বলে উঠতে পারলেন কই! ইনজুরি নিয়ে এই আসরে এসেছেন। ৪ ম্যাচে একটিও গোল করতে পারেননি। তবে সুইজারল্যান্ডের বিপক্ষে শেষ ষোলোর টাইব্রেকে পেনাল্টি থেকে ঠাণ্ডা মাথায় গোল করেছেন। চোটের সমস্যা নিয়ে ভুগছেন। কিন্তু কোচ জানাচ্ছেন, কোয়ার্টার ফাইনালে ঠিকই পর্তুগালের বিপক্ষে খেলবেন লেভা। দেখাই যাক শেষ চারে ওঠার লড়াইয়ে কার জয় হয়, রোনালদোর নাকি লেভানদোস্কির।

Print Friendly, PDF & Email
basic-bank

Be the first to comment on "এবার রোনালদো-লেভানদোস্কির লড়াই"

Leave a comment

Your email address will not be published.


*