‘ফেডারেল রিজার্ভের বিরুদ্ধে মামলা করা উচিৎ বলে আমার মনে হয়’

নিউজ ডেস্ক : বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভ চুরির বাকি অর্থ উদ্ধারে বাংলাদেশের তৎপরতার মধ‌্যে রিজল কমার্শিয়াল ব্যাংকিং করপোরেশন মঙ্গলবার এক বিবৃতিতে বলেছে, নিউ ইয়র্ক ফেড থেকে চুরি যাওয়া অর্থ ফেরত দেওয়ার কোনো দায় তাদের নেই।

এর প্রতিক্রিয়ায় সচিবালয়ে সরকারি ক্রয় সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠক শেষে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত সাংবাদিকদের বলেছেন, ফিলিপিন্সের ব‌্যাংকের বিবৃতিতে মূল্যবোধের সঙ্কট সৃষ্টি হয়েছে।

তিনি বলেন, ফেডারেল রিজার্ভের বিরুদ্ধে মামলা করা উচিৎ বলে আমার মনে হয়, কিন্তু কোন সময়ে, কখন করা উচিত আই অ্যাম নট সো শিউর।

নিউ ইয়র্কের ব‌্যাংকে থাকা বাংলাদেশের রিজার্ভের ৮ কোটি ১০ লাখ ডলার গত ফেব্রুয়ারি মাসে ভুয়া সুইফট বার্তার মাধ‌্যমে ফিলিপিন্সের রিজল ব‌্যাংকে স্থানান্তর হয়েছিল।

রিজল ব‌্যাংকের কয়েকটি হিসাবে পাঠানো ওই অর্থ তোলার পর জুয়ার টেবিলে চলে যায়। তারপর নানা তৎপরতায় এক-পঞ্চমাংশ অর্থ উদ্ধারের পর ফেরত পেয়েছে বাংলাদেশ।

রিজল ব‌্যাংকের যুক্তি গ্রহণযোগ‌্য নয় মন্তব‌্য করে মুহিত বলেন, আর্গুমেন্টটাও কোনো মতেই জাস্টিফাইড না। কারণ এটা তো আগেই বিবেচনা করা হয়েছে, বাংলাদেশ ব্যাংকের একটা ভুল মেসেজের ফলে হয়েছে। ফেডারেল রিজার্ভ প্রথমে আপত্তি করেছিল, পরে দিয়ে দিল। দিয়ে দিল কিন্তু এখান থেকে কোনো গ্রিন সিগন্যাল না পেয়ে।

মুহিত আরও বলেন, অথরাইজড অর্ডার হয়নি বলে তারা ফেরত দিতে চেয়েছিল, এখন তারা বলছে ফেরত দিতে বাধ্য না। এই স্টেইটমেন্টে মূল্যবোধের সঙ্কট সৃষ্টি হয়েছে। মূল্যবোধের দৃষ্টিকোণ থেকে সিদ্ধান্তটি যথাযথ নয়।

Print Friendly, PDF & Email
basic-bank

Be the first to comment on "‘ফেডারেল রিজার্ভের বিরুদ্ধে মামলা করা উচিৎ বলে আমার মনে হয়’"

Leave a comment

Your email address will not be published.


*