ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী একজন পর্নস্টার! জানাচ্ছে ট্রাম্প প্রশাসন!

নিউজ ডেস্ক : শুধু একটা ‘H’ বাদ হয়ে গিয়েছিল। আর তার জেরেই ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রীর পরিবর্তে সোজা এক পর্নস্টারের সঙ্গে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের বৈঠকের তোড়জোর চলল।

খুব শিগগিরই মার্কিন সফরে আসছেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী টেরেসা মে। বৈঠক করবেন নতুন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে। সেইমতো হোয়াইট হাউজের পক্ষ থেকে প্রেস বিবৃতিতে দুই রাষ্ট্রপ্রধানের বৈঠকসূচি প্রকাশ করা হয়েছিল। কিন্তু, তাতে প্রথমবার ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রীর নামের ইংলিশ বানানে Theresa-এর পরিবর্তে Teresa ছাপা হয়।

যা নিয়ে ট্রাম্প প্রশাসনের সমালোচনায় নেমে পড়েন নিন্দুকরা। কারণ, টেরেসা মে (Teresa) আসলে এক মার্কিন অভিনেত্রী ও পর্নস্টারের নাম। বিষয়টি আরও অস্বস্তির হয়ে দাঁড়ায় যখন, একই ভুল দু’বার হয়। দ্বিতীয়বারও ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রীর নামের বানান ভুল ছাপা হয়। এরপর মার্কিন ভাইস প্রেসিডেন্টের অফিসের পক্ষে ভুলটি নজরে আনার পর তা পরিবর্তিন করা হয়।

প্রসঙ্গত, টেরেসা মে ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পর ট্যুইটারে ট্রেন্ডিং হয়ে গিয়েছিলেন পর্নস্টার টেরেসা।

সূত্র: এই সময়

Print Friendly, PDF & Email
basic-bank

Be the first to comment on "ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী একজন পর্নস্টার! জানাচ্ছে ট্রাম্প প্রশাসন!"

Leave a comment

Your email address will not be published.


*